তৃতীয় শ্রেণিতে প্রথম প্রেমের চিঠি পেয়েছিলেন প্রভা

প্রভা

প্রেমের কতশত উপাখ্যান রচিত হয়েছে যুগে যুগে। আজ সেই প্রেমের দিন, ভালোবাসার দিন। আজ থেকে কয়েক বছর আগেও এই প্রেমের শুরুটা হতো চিঠির মাধ্যমে। প্রযুক্তির দাপটে তা এখন প্রায় ভুলতে বসছে প্রেমিক-প্রমিকারা।

তাই তো আজকের বিশেষ দিনে প্রথম প্রেমের চিঠি পাওয়ার গল্প শোনা যাক। সেই গল্পটা যদি হয় ছোট পর্দার জনপ্রিয় অভিনেত্রী সাদিয়া জাহান প্রভার, তাহলে কেমন হয়? হ্যাঁ, গেল বছরের মার্চে এনটিভি অনলাইনকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে সেই গল্প শুনিয়েছিলেন এই অভিনেত্রী।

তৃতীয় শ্রেণিতে প্রথম প্রেমের চিঠি পেয়েছিলেন প্রভা। সেটা আবার ঈদের সময়। একটা কার্ডের মধ্যে লেখা ছিল। চিঠিটা পেয়ে খুব ভয় পেয়েছিলেন প্রভা। সেই গল্পে প্রভার ভাষ্যটা এমন, ‘আম্মু যদি জানতে পারে, আমাকে তো মেরেই ফেলবে!’ এরপর প্রভা তাঁর তুতো বোনকে চিঠিটা দেখান। ওই বোন তখন সপ্তম বা অষ্টম শ্রেণিতে পড়ে। তারপর দুজন মিলে সেই চিঠিটা কুচি কুচি করে কেটে ফেলেন, পাছে ধরা পড়ে যান সেই ভয়ে। তারপর সেই টুকরো অংশগুলোও আলাদা আলাদা করে লুকিয়েছিলেন।

প্রভা

প্রভার কাছে তখন জানতে চাওয়া হয়েছিল, প্রভার প্রেমিক হতে হলে কী যোগ্যতা থাকা লাগবে? প্রভা যেটা বলেছিলেন, যোগ্যতার তালিকাটা দীর্ঘ নয়। বরং প্রেমিক বা পাত্রের দুটি গুণ থাকলেই চলবে। এক— শতভাগ বিশ্বস্ত হতে হবে। আর দুই নম্বর—কোনোভাবেই মাদকের সঙ্গে সম্পর্ক থাকা যাবে না। ব্যস, এই গুণ দুটো হলেই চলবে। এ দুটো ছাড়া আর সবকিছু মানিয়ে নিতে পারবেন। প্রভা ভালো করেই জানেন, ভালো-মন্দ মিলিয়েই মানুষ। তবে কেউ যদি প্রতারণা করে, তখন সম্পর্কের আর কিছু থাকে না।

২০০৫ সালে মডেলিংয়ের মাধ্যমে ক্যারিয়ার শুরু করেন প্রভা। টেলিভিশন বিজ্ঞাপনে মডেল হিসেবে কাজ করার পর তিনি কয়েকটি খণ্ড নাটকে অভিনয় করে খুব অল্প সময়ের মধ্যে জনপ্রিয় হয়ে ওঠেন।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*